| প্রচ্ছদ

সেনাবাহিনীতে যোগ দিতে পারবে সৌদি নারীরা

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ১৮ বার। প্রকাশ: ১০ অক্টোবর ২০১৯ ।

অর্থনীতি সমৃদ্ধকরণ ও সামাজিক সংস্কারে নানা পদক্ষেপের অংশ হিসেবে আরও একটি যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে সৌদি আরব। এবার নারীদের সেনাবাহিনীতে যোগদানের অনুমতি দেবে অতি রক্ষণশীল মধ্যপ্রাচ্যের মুসলিম দেশটি।

নারীর ক্ষমতায়নে সৌদি আরব সম্প্রতি বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়েছে। এসবের ধারাবাহিকতায় এবার নারীদের সেনাবাহিনীতে যোগ দেওয়ার অনুমতি দিতে যাচ্ছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। যদিও অধিকার কর্মীদের অভিযোগ, নারীদের কর্মকাণ্ড এখনো কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করছে রিয়াদ।

সৌদি নারীদের সেনাবাহিনীতে যোগ দেওয়ার অনুমতি দেওয়া প্রসঙ্গে দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক টুইট বার্তায় লিখেছে- “ক্ষমতায়নের আরও এক ধাপ।” সৌদি নারীরা প্রথম শ্রেণি, কর্পোরাল বা সার্জেন্টের মতো পদগুলোতে যোগ দিতে পারবে বলে ওই টুইটে উল্লেখ করা হয়েছে।

গত বছর নারীদের দেশের নিরাপত্তাবাহিনীগুলোতে যোগ দেওয়ার অনুমতি দেয় সৌদি আরব। দেশটির যুবরাজ মোহাম্মেদ বিন সালমান নারীর ক্ষমতায়নে যেসব পদক্ষেপ নিয়েছেন, এর মধ্যে রয়েছে নারীদের ড্রাইভিং লাইসেন্স দেওয়া, পুরুষ অভিভাবক ছাড়াই তাদের বিদেশে ভ্রমণের অনুমতি, আবাসিক হোটেলে রুম ভাড়া নিতে পারার অনুমতি।

নারীর ক্ষমতায়নে এসব সিদ্ধান্ত নেওয়ার মধ্যে লজেন আল-হাতলোলসহ বেশ কয়েকজন নারী অধিকার কর্মীকে গ্রেপ্তার করতেও দেখা গেছে সৌদি কর্তৃপক্ষকে।

বিশ্বের অন্যতম তেলসমৃদ্ধ সৌদি আরব বেশ কয়েক বছর ধরে তাদের ভাবমূর্তি বিশ্ব দরবারে উজ্জ্বলে নানা চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। সেই সঙ্গে অর্থনীতিতে তেল নির্ভরতা কমাতে পর্যটনশিল্প উন্নয়নেও অনেক পদক্ষেপ নিচ্ছে তারা। 

মন্তব্য