| প্রচ্ছদ

বাবরি মসজিদের জায়গা ছাড়তে রাজি সুন্নি ওয়াক্ফ বোর্ড!

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৫৮ বার। প্রকাশ: ১৭ অক্টোবর ২০১৯ ।

ভারতের অযোধ্যার বাবরি মসজিদ নিয়ে মামলা নতুন মোড় নিল। নিজেদের অবস্থান বদলের ইঙ্গিত দিয়েছে সুন্নি ওয়াক্ফ বোর্ড- এমনটা জানিয়েছে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। যদিও সংগঠনটির আইনজীবীরা উল্টো কথা বলছে! খবর দেশ রুপান্তর

বিতর্কিত রাম জন্মভূমি-বাবরি মসজিদের জমি সংক্রান্ত মামলার শুনানি শেষ হওয়ার পর সুপ্রিম কোর্টের সাংবিধানিক বেঞ্চে মীমাংসা সূত্র (সেটেলমেন্ট) পেশ করেছে আদালত নিযুক্ত মধ্যস্থতাকারী প্যানেল।

বলা হচ্ছে, কিছু শর্তে বিতর্কিত জমির ওপর থেকে দাবি ছাড়তে সুন্নি সেন্ট্রাল ওয়াক্ফ বোর্ড রাজি হয়েছে। যেখানে উল্লেখ করা হয়েছে, কেন্দ্রীয় সরকার যদি জমি অধিগ্রহণ করে, তাহলে আপত্তি থাকবে না। পরিবর্তে তাদের জন্য নতুন মসজিদ গড়ে দিতে হবে। পাশাপাশি নামাজের জন্য অযোধ্যার মসজিদগুলো সংস্কার করতে হবে।

এ বিষয়ে সমঝোতা করতে এক মাস সময় লেগেছে। দিল্লি ও চেন্নাইয়ে এ নিয়ে ২-৩টি বৈঠক হয়।

তবে জমি নিয়ে আপত্তি তুলে নেওয়ার কথা জানাননি বলে দাবি করেছেন সুন্নি ওয়াক্ফ বোর্ডের আইনজীবীরা। যদিও ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বলছে, আপত্তি তুলে নেওয়ার খবর ছড়ানোর পর নিজেদের অবস্থান থেকে সরে এসেছে সুন্নি ওয়াক্ফ বোর্ড।

নির্দিষ্ট সময়ের এক ঘণ্টা আগে বুধবার শেষ হয় বিতর্কিত এই জমি সংক্রান্ত মামলার শুনানি।

এদিন শুনানি চলাকালীন নাটকীয় মুহূর্ত তৈরি হয়। আদালতে কিছু নথি পেশ করেন অল ইন্ডিয়া হিন্দু মহাসভার আইনজীবী। এরপরই তীব্র আপত্তি করে মুসলিম পক্ষের আইনজীবী রাজীব ধাওয়ান।

হিন্দু মহাসভার পেশ করা ওই বই, কিছু নথি ও ম্যাপ ছিঁড়ে ফেলেন ধাওয়ান। আদালতে তিনি বলেন, হিন্দু মহাসভার ওই নথিকে সাক্ষ্য হিসেবে গণ্য করা যাবে না। অবশ্য এর আগে বিচারকের কাছে জানতে চান এই নথি নিয়ে কী করবেন। উত্তরে তিনি বলেন, রাজীব চাইলে ছিড়ে ফেলতে পারেন।

মন্তব্য