| প্রচ্ছদ

ঢাবির ‘ক’ ইউনিটের ফল নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া অভিভাবকদের

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৪৯ বার। প্রকাশ: ২০ অক্টোবর ২০১৯ ।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘ক’ ইউনিটের প্রকাশিত ফলাফলে অসামঞ্জস্য অভিযোগ তুলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন অভিভাবকদের কেউ কেউ।

‘ক’ ইউনিটের গণিত অংশের ফলাফল নিয়েই তারা এমন ক্ষোভ জানিয়েছেন।

রোববার ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) শ্রেণিতে বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ‘ক’ ইউনিটের প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়। এবার ১৩.০৫ শতাংশ পরীক্ষার্থী পাস করেছেন।

দূর্বা বিশ্বাস নামের একজন ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আমার বোনের ঢাবির ক ইউনিটের ম্যাথের রেজাল্ট অনাকাঙ্ক্ষিত এসেছে৷’

এস এম আতিক নামের একজন লিখেছেন, ‘আমার বোনের ম্যাথের রেজাল্টই নাই লিস্টে।’ খন্দকার রিমন নামের একজন লিখেছেন, ‘আমার ভাইয়েরও হইছে এমন।’

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে বিজ্ঞান অনুষদের ডিন ও ‘ক’ ইউনিট ভর্তি পরীক্ষার প্রধান সমন্বয়কারী অধ্যাপক তোফায়েল আহমদ চৌধুরী গণমাধ্যমকে বলেন, তিনি এখন ব্যস্ত আছেন। এ বিষয়ে পরে কথা বলবেন।

প্রসঙ্গত ৭৫ নম্বরের নৈর্ব্যক্তিক ও ৪৫ নম্বরের লিখিত পরীক্ষার মাধ্যমে এবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে নতুন নিয়মে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ৯০ মিনিটের পরীক্ষায় অংশ নিতে হয়েছে পরীক্ষার্থীদের।

নৈর্ব্যক্তিক পরীক্ষার জন্য ৫০ মিনিট ও লিখিত পরীক্ষার জন্য সময় ছিল ৪০ মিনিট। প্রতিটি নৈর্ব্যক্তিকের জন্য ১.২৫ নম্বর বরাদ্দ ছিল।

প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য কাটা গেছে ০.২৫ নম্বর। ভর্তি পরীক্ষায় পাস করতে হলে প্রার্থীকে নৈর্ব্যক্তিক অংশে ৩০ ও লিখিত অংশে ১২ নম্বরসহ মোট ৪৮ নম্বর পেতে হয়েছে। এ ছাড়া বিষয়ভিত্তিকভাবেও পরীক্ষার্থীদের পাস করতে হয়েছে।

মন্তব্য