| প্রচ্ছদ

নানা আয়োজনে বগুড়ায় কমিউনিটি পুলিশিং ডে পালিত

স্টাফ রিপোর্টার
পঠিত হয়েছে ১৫৮ বার। প্রকাশ: ২৬ অক্টোবর ২০১৯ ।

‘পুলিশের সঙ্গে কাজ করি, মাদক-জঙ্গী- সন্ত্রাসমুক্ত দেশ গড়ি’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে পুলিশের কার্যক্রমে জনসম্পৃক্ততা বাড়ানোর জন্য বগুড়ায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে কমিউনিটি পুলিশিং ডে-১৯ পালিত হয়েছে।


বগুড়া জেলা পুলিশের আয়োজনে শনিবার সকালে শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথায় বেলুন উড়িয়ে দিবসটির উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি বগুড়া-৫ আসনের সাংসদ হাবিবর রহমান। এরপর শহীদ খোকন পার্ক থেকে বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। র‍্যালীতে হাতি এবং ঘোড়ার গাড়ি বিশেষ নজর কাড়ে। র‌্যালীটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে  শহীদ টিটু মিলনায়তনে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালীতে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ বিরোধী বিভিন্ন লিফলেট নিয়ে সদর উপজেলার ২১ টি ওয়ার্ড , ১১ টি ইউনিয়ন এবং বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ পৌর শাখাসহ  বিপুল সংখ্যক মানুষ অংশ নেয়। 


র‍্যালী শেষে শহীদ টিটু মিলনায়তনে শুরু হয় দিবসটি উপলক্ষ্যে বিতর্ক প্রতিযোগিতা। ‘প্রচলিত পুলিশের চেয়ে কমিউনিটি পুলিশিং বেশি কার্যকর’ এই বিষয়ের পক্ষে সামিট স্কুল এন্ড কলেজ এবং বিপক্ষে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন স্কুল এন্ড কলেজ অংশগ্রহণ করে। এতে সামিট স্কুল এন্ড কলেজ জয় লাভ করে। 
এর পাশাপাশি মিলনায়তন চত্বরে বগুড়া অনলাইন রক্তদান সংগঠন বিনামূল্যে রক্তের গ্রুপ নির্ণয় সহ রক্তদান কর্মসুচীর আয়োজন করে। 


বিতর্ক শেষে দিবসটি উপলক্ষ্যে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- প্রধান অতিথি বগুড়া -৫ আসনের সাংসদ হাবিবর রহমান। এছাড়াও বক্তব্য রাখেন- বিশেষ অতিথি জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ, জেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর সমন্বয় কমিটির এবং প্রেসক্লাবের সভাপতি মোজাম্মেল লালু, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আবু সুফিয়ান শফিক, মুক্তিযোদ্ধা কমাণ্ডার রুহুল আমিন এবং বগুড়া চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাসুদার রহমান মিলন।

এছাড়াও জেলা পুলিশের পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপারদের মধ্যে সফিজুল ইসলাম, মোকবুল হোসেন, আব্দুল জলিল এবং আরিফুর রহমান মণ্ডল, অতিরিক্ত পুলিশ সুপারদের মধ্যে সনাতন চক্রবর্তী, তাপস কুমার পাল, সদর থানার ওসি এসএম বদিউজ্জামান, ডিবি পুলিশের ওসি আছলাম আলী, সদর থানার ওসি(তদন্ত) রেজাউল করিম রেজা, উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর সভাপতি জি এম সাকলাইন বিটুল, সহ সাধারণ সম্পাদক পরিমল প্রসাদ রাজ সহ সকল সদস্য উপস্থিত ছিলেন।। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জেলা কমিউনিটি পুলিশিং এর সমন্বয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শাহাদত আলম ঝুনু। 


এসময় বক্তারা বলেন, দেশে ঐক্যবদ্ধ সমাজ গড়তে মাদক-জঙ্গি-সন্ত্রাসমুক্ত করতে কমিউনিটি পুলিশিংয়ের বিকল্প নেই। সবধরনের অপরাধ নির্মূলে পুলিশের পাশাপাশি কমিউনিটি পুলিশ কাজ করে যাচ্ছে। তাই সবাই মিলে পুলিশকে তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করলে এ সকল অনৈতিক কর্মকাণ্ড থেকে সন্ত্রাস নির্মূল করতে সক্ষম হবে বলে মন্তব্য করেন বক্তারা।


আলোচনা সভা শেষে, বিতর্ক এবং চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। 
 

মন্তব্য