| প্রচ্ছদ

নোয়াখালীতে আতিথেয়তা: ৭০ হাজার ভর্তিচ্ছুর থাকা, খাওয়া, যাতায়াত ফ্রি

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ১২৮ বার। প্রকাশ: ৩১ অক্টোবর ২০১৯ ।

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (নোবিপ্রবি) এ বছরও ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের জন্য বিনা মূল্যে থাকা-খাওয়া ও যাতায়াতের ব্যবস্থা করেছে জেলার জনপ্রতিনিধি, প্রশাসন, বিভিন্ন সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠন। 

তাদের উদ্যোগে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের থাকা, খাওয়া, যাতায়াতেরও ব্যবস্থা করা হয়েছে।

এ বিষয়ে নোয়াখালী পৌরসভার মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেল দেশ রূপান্তরকে জানান, বিগত বছরের ধারাবাহিকতায় এ বছরও বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তিচ্ছুদের সর্বোচ্চ সহযোগিতা দিতে প্রস্তুত আমরা। শুধু পৌরসভা থেকে ৪০০ স্বেচ্ছাসেবক লোগো সংবলিত টিশার্ট পরে পরীক্ষার্থীদের সহযোগিতায় নিয়োজিত থাকবে।

তিনি জানান, এ ছাড়া শহরের বিভিন্ন স্থানে থাকবে ছয়টি ক্যাম্প। সেখানে থাকবে ৩০ জন করে স্বেচ্ছাসেবক। শিক্ষার্থীকে কেন্দ্রে পৌঁছে দিতে ২০০টি মোটরসাইকেল দেওয়া হবে। শিক্ষার্থীদের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে মেডিকেল টিম দেওয়া হবে। শহরের মসজিদ, মন্দির,স্কুল, কলেজসহ সব জায়গায় ভর্তিচ্ছুদের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

শহিদ উল্যাহ খান বলেন, শহরের হোটেল, পরিবহন, দোকানিরা যাতে কোনো অনিয়ম করতে না পারে সে দিকেও লক্ষ্য রাখা হয়েছে।

অপরদিকে নোয়াখালী-৪ আসনের সাংসদ একরামুল করিম চৌধুরীর পক্ষ থেকে ৮০ হাজার লিটার বিশুদ্ধ পানি এবং যাতায়াতের জন্য ১০০ বাস দেওয়া হবে বলে জানা গেছে।

এ ছাড়া নোয়াখালী সদর উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে উপজেলা পরিষদ ভবন এবং রেড ক্রিসেন্ট মিলনায়তনে থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থা এবং সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার থেকে ভর্তি পরীক্ষা শুরু হচ্ছে। এ পরীক্ষা চলবে শনিবার পর্যন্ত। শুক্রবার সকাল ১০টা ৩০ মিনিটে ‘এ’ ইউনিট এবং বিকেল ৩টায় ‘বি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

এবার ৩০ বিষয়ে এক হাজার ২৮৫ আসনের বিপরীতে আবেদন জমা পড়েছে ৬৮ হাজার ৭৬০। প্রতি আসনের জন্য লড়বে ৫৩ ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী।

বৃহস্পতিবার নোয়াখালী শহর এবং বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ঘুরে দেখা যায় বিভিন্ন স্থান থেকে ভর্তিচ্ছুরা ইতিমধ্যে আসা শুরু করেছে।

মন্তব্য