| প্রচ্ছদ

বগুড়ায় গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার
পঠিত হয়েছে ৮৪ বার। প্রকাশ: ০৫ নভেম্বর ২০১৯ ।

বগুড়া সদর উপজেলায় পপি বেগম (২০) নামে এক গৃহবধুর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে উপজেলার শেখেরকোলা ইউনিয়নের বালাকৈগাড়ি এলাকা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। পপি বগুড়া সদর উপজেলার নিশিন্দারা ঠেঙ্গামারা চাদপুর এলাকার মোঃ সারওয়ার সরদারের মেয়ে ও উপজেলার শেখেরকোলা ইউনিয়নের বালাকৈগাড়ি এলাকার রিপন হোসেনের স্ত্রী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহত পপির সাথে বগুড়া সদর উপজেলার শেখেরকোলা ইউনিয়নের বালাকৈগাড়ি এলাকার রিপন হোসেনের প্রায় ৬ বছর পূর্বে বিয়ে হয়। তাদের ঘরে রিপামনি (৪) ও রাজিয়া (৯ মাস) নামে দুটি ছোট ছোট মেয়ে সন্তান রয়েছে। তাদের সংসার জীবনের মাঝে একবার বিচ্ছেদেরও ঘটনা ঘটে। এ সময় পপিকে মহরানার টাকা পরিশোধ করে রিপন। পরবর্তিতে আবার তাদের মাঝে ফোনে কথা চলতো এবং এক পর্যায়ে ৬ মাস পর তারা আবারো একত্রে সংসার করতে শুরু করে। জানা গেছে, বিভিন্ন ভাবে পপিকে তার স্বামী নির্যাতন চালাতেন। নির্যাতন সইনে না পেরে পপি আত্মহত্যা করতে পারে বলে ধারনা এলাকাবাসির।

বগুড়া সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোঃ সোহেল রানা জানান, মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় উপজেলার শেখেরকোলা ইউনিয়নের বালাকৈগাড়ি এলাকায় পপির শশুর বাড়ির বাথরুমের তীরের সাথে গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় থানায় অপমৃত্যু (ইউডি) মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মন্তব্য