| প্রচ্ছদ

টিকটক যাকে চীনের নবম ধনী বানিয়েছে

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৩৮ বার। প্রকাশ: ০৬ নভেম্বর ২০১৯ ।

২০১২ সালে বাইটড্যান্স প্রতিষ্ঠানের যাত্রা শুরু করে সাত বছর বাদে চীনের নবম সেরা ধনী হয়ে গেছেন উদ্যোক্তা ঝাং ইয়েমিং। তার এমন উত্থানের কারণ ছোট ভিডিও বানানোর অ্যাপ টিকটক।

বাইটড্যান্স ২০১৬ সালে টিকটক অ্যাপ আনে। এখন সারা পৃথিবীতে মাসে ৫০০ মিলিয়ন অ্যাকটিভ ব্যবহারকারী রয়েছে তাদের। ফেইসবুক, ইউটিউবকে ছাড়িয়ে এটি এখন পৃথিবীর সবচেয়ে বেশিবার ডাউনলোড হওয়া অ্যাপ।

বিশ্বখ্যাত মার্কিন সাময়িকী ফোর্বসের তালিকা বলছে, ঝাংয়ের বর্তমান সম্পদ মূল্য ১৬.২ বিলিয়ন ডলার। বাইটড্যান্সে এই ব্যবসায়ীর ২৪ শতাংশ মালিকানা রয়েছে।

বাইটড্যান্স প্রতিষ্ঠার পর থেকে ঝাং ব্যবসায়ী হিসেবে সফলতা পেতে থাকেন। ২০১৩ সালে ফোর্বসের থার্টি আন্ডার থার্টি তালিকায় স্থান পান।

সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ছাত্র ঝাং নানকাই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ২০১২ সালে বিরতি নেন। ওই বছর নিজের প্রতিষ্ঠানের জন্য ৫ মিলিয়ন ডলারের ফান্ড সংগ্রহ করেন। এক বছর বাদে আরও ভেঞ্চার ক্যাপিটাল প্রতিষ্ঠান তাকে অর্থ দিতে শুরু করে।

বাইটড্যান্সের চলতি বছরের প্রথমার্ধের আয়ের হিসাব থেকে দেখা যাচ্ছে, প্রতিষ্ঠানটি প্রথমার্ধে আয় করেছে ৭০০ থেকে ৮৪০ কোটি মার্কিন ডলার। গত বছর বাইটড্যান্সের আয় হয়েছিল ১০০ বিলিয়ন ইয়ান।

টিকটক বাজারে আসার পর বেশ কঠিন সময় পার করতে হয়েছে ঝাংকে। বিভিন্ন দেশে নিরাপত্তা সংক্রান্ত অভিযোগ ওঠে তার প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। কিছু জায়গায় অ্যাপটি নিষিদ্ধও করা হয়।

মন্তব্য