| প্রচ্ছদ

ঢাকা-১০: ভোটার শূন্য প্রায় সব কেন্দ্র, অলস অপেক্ষা কর্মকর্তাদের

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৫৩ বার। প্রকাশ: ২১ মার্চ ২০২০ ।

জনমনে ব্যাপক করোনা ভীতির মধ্যে অনুষ্ঠিত ঢাকা-১০ সংসদীয় আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ চলছে। তবে প্রায় সবগুলো কেন্দ্রই অনেকটা ভোটারশূন্য।

শনিবার সকাল ৮টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত এ আসনের অন্তত ২৫টি কেন্দ্র ঘুরে এমন চিত্র চোখে পড়েছে। এসব কেন্দ্রে ভোট পড়েছে ৩ শতাংশেরও কম।

তবে সকালে ভোটার উপস্থিতি কম হলেও দুপুর নাগাদ বাড়তে পারে বলে আশা করছেন বিভিন্ন কেন্দ্রে দায়িত্বরত কর্মকর্তারা। খবর দেশ রুপান্তর অনলাইন।

সকাল ৮টা ২০ মিনিটে নিউ মার্কেট বলাকা সিনেমা হল কেন্দ্রে গিয়ে দেখা গেছে প্রায় সবগুলো বুথই ফাঁকা। কোনো ভোটার নেই। ছয়টি বুথে কোনো ভোটই পড়েনি। তবে কেন্দ্রের সামনে নৌকার সমর্থকদের উপস্থিতি ছিল বেশ লক্ষণীয়।

ধানমন্ডির ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি কেন্দ্র থেকে ধানের শীষের এজেন্টদের মোবাইল ছিনিয়ে নিয়ে তাদের বের করে দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া কাঁঠালবাগান খান হাসান স্কুল, রায়ের বাজার হাই স্কুল কেন্দ্র, রাজমশুর স্কুল ও প্রগতি স্কুল কেন্দ্রে ভোটারদের উপস্থিতি চোখে পড়েনি।

মনেশ্বর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রেও ভোটার উপস্থিতি একেবারে কম। বেল সাড়ে ১১টা পর্যন্ত ২৫৯৮ ভোটের মধ্যে ৬টি বুথে ভোট পড়েছে ৬৯টি। এ কেন্দ্রে বিএনপির কোনো এজেন্ট দেখা যায়নি।

সেখানকার দায়িত্বরত একজন কর্মকর্তা বলেন, ‘ভোটারদের উপস্থিতি কম। যারা কেন্দ্রে আসছেন, তাদেরও সরকারি দলের লোকজন হুমকি-ধমকি দিচ্ছেন। ভোট দিয়ে কেন্দ্র থেকে ঘরে ফিরতে পারবেন না বলে ভোটারদের হুমকি দিচ্ছেন নৌকার সমর্থকরা।’

এদিকে ঢাকা কলেজ কেন্দ্রে ছাত্রদল কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়। পরে টিকতে না পেরে কেন্দ্র ছেড়ে কাঁঠালবাগান এলাকায় চলে যায় ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা।

এছাড়া করোনাভাইরাস প্রতিরোধে কেন্দ্রে কেন্দ্রে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা চোখে পড়েছে। বিভিন্ন স্থানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার রাখা থাকলেও সেগুলোর কোনো কোনোটি অব্যবহৃত অবস্থায় দেখা গেছে।

মন্তব্য