| প্রচ্ছদ

কোন তলে কতদিন বাঁচে করোনা ভাইরাস!

পুন্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৪৩ বার। প্রকাশ: ২৪ মার্চ ২০২০ ।

করোনাভাইসরাস নিয়ে সারা বিশ্ব আতঙ্কিত। যারা সচেতন তারা ঘন ঘন হাত ধুচ্ছেন। ঘরের বাইরে মাস্ক পরছেন। কিন্তু কোন তলে এই ভাইরাস কতদিন বাঁচে এবং কতদিন রোগ ছড়াতে পারে তা জানেনা অধিকাংশই।
গবেষকদের মতে করোনাভাইরাস সবচেয়ে বেশি ৫দিন বাঁচতে পারে পলিপ্রোপিলিনের উপর। এটি এক ধরনের প্লাস্টিক যা দিয়ে বাচ্চাদের খেলনা থেকে শুরু করে প্লাস্টিকের টিফিন বক্স পর্যন্ত তৈরি করা হয়।
খবরের কাগজ থেকে এই ভাইরাস না ছড়ালেও অন্যান্য কাগজের উপর ৪-৫ দিন পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে করোনাভাইরাস।
কাচ জাতীয় কোনও পৃষ্ঠদেশের উপর অন্তত চার দিন পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে এই ভাইরাস। কাচের মতো সমান সংক্রমণযোগ্য হল কাঠ। কাঠের বস্তুর উপরও এই ভাইরাস চার দিন পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে। তাই গবেষকেরা জানাচ্ছেন, কাঠের কোনও বস্তুতে হাত দিলে, তার পরই ভাল করে ২০ সেকেন্ড ধরে সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলা জরুরি।
এর পর যে পৃষ্ঠদেশের উপর করোনাভাইরাস বেশি ক্ষণ বেঁচে থাকতে পারে, তা হল স্টেইনলেস স্টিল। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, স্টেইনলেস স্টিলের উপর এই ভাইরাস ৪৮ ঘণ্টা পর্যন্ত সক্রিয় থাকে।
চিকিৎসকেরা যে সার্জিক্যাল গ্লাভস ব্যবহার করেন তার উপর এই ভাইরাস অন্তত চার ঘণ্টা পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে। সুরক্ষা-বিধি মেনে না চললে, এই গ্লোভস থেকেও সংক্রমণ ছড়ানোর সম্ভাবনাও খুব বেশি।
অ্যালুমিনিয়ামের উপর এই ভাইরাস দু’ঘণ্টা থেকে চার ঘণ্টা পর্যন্ত বেঁচে থাকতে পারে।
সম্প্রতি নিউ ইংল্যান্ড জার্নাল অব মেডিসিন একটি রিপোর্ট, তামার উপর এবং বাতাসে এই ভাইরাস কতদিন বাঁচতে পারে, তা প্রকাশ করেছে।
সেই রিপোর্ট অনুযায়ী, তামার উপর চার ঘণ্টা এবং বাতাসে মাত্র তিন ঘণ্টা পর্যন্ত বেঁচে থাকে করোনাভাইরাস। বিদেশী পত্রিকা অবলম্বনে

 

 

মন্তব্য