| প্রচ্ছদ

ট্রাম্পের কথা শুনে করোনার ওষুধ খেয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু

পুন্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ১০ বার। প্রকাশ: ২৪ মার্চ ২০২০ ।

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বক্তৃতা শুনে করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতে ক্লোরোকুইন ফসফেট খেয়ে মারা গেছেন এক ব্যক্তি। বিষক্রিয়ায় গুরুতর অসুস্থ হয়ে চিকিৎসাধীন তার স্ত্রীও। যুক্তরাষ্ট্রের আ্যরিজোনা রাজ্যে ঘটেছে এই ঘটনা।

গত সপ্তাহে, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ নিয়ে সবশেষ পরিস্থিতি সম্পর্কে ব্রিফিং করার সময় ট্রাম্প দাবি করেন, ম্যালেরিয়ার চিকিৎসায় ব্যবহৃত ক্লোরোকুইন জাতীয় ওষুধ ব্যবহার করে কোভিড-১৯ রোগের নিরাময় সম্ভব। এ ধরনের চিকিৎসার অনুমোদন দেয়া হয়েছে বলেও দাবি করেন ট্রাম্প। তবে পরে এফ ডি এর চিকিৎসকরা জানান বিষয়টি এখনো নিশ্চিত নয়।

সোমবার আ্যরিজোনার ওই দম্পতি, যাদের দুজনেরই বয়স ষাটের কোঠায়, ক্লোরোকুইন ফসফেট সেবন করেন। এর আধঘণ্টার মধ্যেই তারা দুজনেই মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়লে, তাদের হাসপাতালে নেয়া হয়। স্ত্রীকে বাঁচানো গেলেও স্বামীর মৃত্যু হয়।

এনবিসি চ্যানেলকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ওই নারী বলেন, ট্রাম্প বারবারই বলেছেন এটাই চিকিৎসা। দয়া করে কেউ প্রেসিডেন্টের কোন কথা বিশ্বাস করবেন না, নিজে থেকে কিছু খাবেন না, চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

তবে ওই দম্পতি আসলেই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন কি না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

আ্যরিজোনার ব্যানার পয়জন অ্যান্ড ড্রাগ ইনফরমেশন সেন্টারের এক কর্মকর্তা বলেন, কোভিড-১৯ নিয়ে অনিশ্চয়তার কারণে অনেকেই অনেকভাবে ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে বাঁচার দাওয়াই খুঁজছেন। তবে নিজে নিজে কোন ওষুধ খাওয়া ঠিক নয়, এতে মারাত্মক স্বাস্থ্যঝুঁকি রয়েছে।

ক্লোরোকুইন চিকিৎসকের নির্দেশনা ছাড়া বিক্রি নিষিদ্ধ। তবে ক্লোরোকুইনের অন্যতম উপাদান ক্লোরোকুইন ফসফেট মাছের ট্যাংক পরিষ্কারে ব্যবহার হয়, খোলা বাজারেই কিনতে পাওয়া যায়।

সূত্র: গার্ডিয়ান

মন্তব্য