| প্রচ্ছদ

রাণীনগরে বাকপ্রতিবন্ধি বিধবাকে মারপিট করে ঘর ভেঙ্গে দেয়ার অভিযোগ

কাজী আনিছুর রহমান, রাণীনগর (নওগাঁ)
পঠিত হয়েছে ৬৮ বার। প্রকাশ: ০৩ মে ২০২০ ১৮:২৫:০৩ ।

নওগাঁর রাণীনগরে জায়গার মালিকানার বিরোধের জের ধরে জোবেদা (৫৮) নামে এক বাকপ্রতিবন্ধি বিধবাকে মারপিট করে ঘর ভেঙ্গে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। এঘটনায় গত চার দিন অতিবাহিত হলেও মামলা নেয়নি থানাপুলিশ। ফলে বিচার পাওয়া নিয়ে শংকায় পরেছেন পরিবারটি। ঘটনাটি ঘটেছে গত বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার রঞ্জনিয়া পূর্বপাড়া গ্রামে। 
বিধবা জোবেদার ছেলে গোলাপ চৌধুরী জানান,তার বাড়ির সাথে তাদের জায়গাতে তার বাকপ্রতিবন্ধি বিধবা মা জোবেদাকে থাকার জন্য ১০/১২ দিন আগে টিনের বেড়া দিয়ে ঘর করে দেন। সেই থেকে তার মা সেই ঘরে বসবাস করে আসছেন। হঠাৎ করে বৃহস্পতিবার বিকেলে প্রতিবেশি আত্তাব শেখ জায়গাটি তার দাবি করে বহিরাগত ভাড়াটিয়া ৮-১০জন লোক নিয়ে এসে আমার মাকে মারপিট করে ঘর ভেঙ্গে দেয় ও আসবাসপত্র ভাংচুর করে। ঘরের টিন ও মেঝের একটি ইটও তারা রাখেনি সব পুকুরে ফেলে দিয়েছে ও বাড়িতে নিয়ে গেছে । সম্পন্ন ভেঙ্গে মাটির সাথে মিশে দিয়েছে। এঘটনায় থানায় সংবাদ দেয়া হলে পুলিশ ঘটনাস্থল পরির্দশন করলেও মামলা দিতে গেলে থানার ওসি মামলা নেয়নি বলে দাবি করেন গোলাপ চৌধুরী । ফলে সুষ্ঠু বিচার নিয়ে শংকায় পরেছেন পরিবারটি ।
এ ব্যাপারে আত্তাব শেখের ছেলে আশাফুল শেখ বলেন, প্রায় ৩৭ বছর আগে আমরা জায়গাটি কিনে নিয়ে দখল করে আসছি । হঠাৎ করেই গোলাপ চৌধুরী আমাদের জায়গাতে টিন দিয়ে জোর করে ঘর করে। এঘটনায় আমরা গত বুধবার থানায় একটি মামলা দায়ের করেছি । আমরা কাউকে মারপিট করিনি । শুধুমাত্র ঘর ভেঙ্গে দিয়েছি।  

এ ব্যাপারে রাণীনগর থানার ওসি মো: জহুরুল হক বলেন,ঘর নয়, টিনের ছাপড়া দিয়ে জোর পূর্বক আত্তাব শেখের জায়গা দখল করেছে এমন অভিযোগে গত ২৯ এপ্রিল আত্তাব শেখ বাদী হয়ে গোলাপ চৌধুরীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন। তার পরেও ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে ।

মন্তব্য