| প্রচ্ছদ

করোনার নমুনা দিতে হাসপাতালে গিয়েছিলেন

দৈনিক বগুড়ার বার্তা সম্পাদক রতন আর নেই

পুণ্ড্রকথা রিপোর্ট
পঠিত হয়েছে বার। প্রকাশ: ১১ জুন ২০২০ ১৩:৪২:১৩ ।

বগুড়া থেকে প্রকাশিত ‘দৈনিক বগুড়া’র বার্তা সম্পাদক ওয়াসিউর রহমান রতন আর নেই। করোনা পরীক্ষার নমুনা দিতে গিয়ে বৃহস্পতিবার দুপুরে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে তিনি মৃত্যুবরণ করেছেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। পরিবারের সদস্য ও সহকর্মীরা জানিয়েছেন, ওয়াসিউর রহমান রতন ডায়াবেটিসসহ নানা রোগে ভূগছিলেন।

বগুড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহমুদুল আলম নয়ন জানান, ওয়াসিউর রহমান রতন তাঁর স্ত্রী, পুত্রবধূ এবং নাতনিকে নিয়ে করোনার নমুনা পরীক্ষার জন্য বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে শজিমেক হাসপাতালে যান। বিষয়টি প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে হাসপতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়ে সহযোগিতার অনুরোধ করা হলে শজিমেক কর্তৃপক্ষ ওয়াসিউর রহমান রতনকে ৪নং গেটে দিয়ে প্রবেশ করার অনুরোধ জানান। 
শজিমেক হাসপাতালের সহকারি পরিচালক ডা. আব্দুল ওয়াদুদ জানান, বগুড়া প্রেসক্লাব সভাপতি মাহমুদুল আলম নয়নের ফোন পেয়ে সাংবাদিক ওয়াসিউর রহমান রতনকে রিসিভ করার জন্য একজন স্টাফকে পাঠানো হয়। তিনি বলেন, ‘আমাদের সেই স্টাফ ৪নং গেটের কাছে গিয়ে দেখেন রতন সাহেব অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। সঙ্গে সঙ্গে তাকে জরুরী বিভাগে নেওয়া হয়। সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসকরা আমাকে বলেন তাঁর রক্তচাপ বেশি এবং সম্ভবত তিনি স্ট্রোক করেছেন। পরে তাকে মেডিসিন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার নমুনাও সংগ্রহ করা হয়। এরপর দুপুর ১২টার কিছু পরে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।’
‘দৈনিক বগুড়া’র মফস্বল সম্পাদক বাদল চৌধুরী জানান, ৬১ বছর বয়সী ওয়াসিউর রহমান রতন দীর্ঘদিন থেকে ডায়াবেটিসহ নানা রোগে ভূগছিলেন। শারীরিক অসুস্থতা নিয়েই তিনি গত ৮ জুন পর্যন্ত অফিসে এসেছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, এক ছেলে এক মেয়ে এবং নাতনি রেখে গেছেন। সাংবাদিক ওয়াসিউর রহমান রতনের মৃত্যুতে বগুড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহমুদুল আলম নয়ন ও সাধারণ সম্পাদক আরিফ রেহমান শোক প্রকাশ করেছেন। এক শোক বাণীতে প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ মরহুমের আত্মার মাগফেরাত এবং তার শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন। সাংবাদিক ওয়াসিউর রহমান রতনের মৃত্যুতে পুণ্ড্রকথা পরিবারও গভীরভাবে শোকাহত।

মন্তব্য