| প্রচ্ছদ

অস্ট্রেলিয় বিশেষজ্ঞদের গবেষণা

মৌমাছির বিষে স্তন ক্যান্সার ভাল হয়

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে বার। প্রকাশ: ০৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ ১২:৫১:০৭ ।

মৌমাছির বিষে এমন উপাদান রয়েছে- যা স্তন ক্যান্সারের কোষ ধ্বংস করতে পারে। এমনকি ক্যান্সার বিপজ্জনক পর্যায়ে পৌঁছলেও তা সম্ভব। এতে দেহের অন্য কোনো কোষের ক্ষতি হবে না বলে গবেষণায় প্রমাণ পাওয়া গেছে। মৌমাছির বিষ নিয়ে গবেষণা করেছেন ইউনিভার্সিটি অব ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়ার বিশেষজ্ঞরা। তারা ইংল্যান্ড, আয়ারল্যান্ড ও পশ্চিম অস্ট্রেলিয়ার পার্থ থেকে পাওয়া ৩১২টি মৌমাছির বিষ পরীক্ষা করে দেখেছেন। মৌমাছিগুলো থেকে পাওয়া বিষ বিভিন্ন ধরনের স্তন ক্যান্সারের ক্ষেত্রে প্রয়োগ করা হয়েছে। এতে দেখা যায়; এই বিষ টিউমার বা ক্যান্সারের কোষ খুব দ্রুত ধ্বংস করতে সক্ষম হয়েছে। এর আগে মৌমাছির বিষ কিংবা এই বিষে থাকা উপাদানের (মেলিটিন) ক্যান্সারের কোষ ধ্বংসের কার্যকারিতা নিয়ে গবেষণা হয়নি। এই গবেষণায় মৌমাছির বিষ থেকে সফলভাবে মেলিটিন আলাদা করা গেছে এবং পার্শ্ববর্তী সুস্থ কোষের কোনোরকম ক্ষতি না করেই ক্যান্সারের কোষ পুরোপুরি ধ্বংস করা গেছে। তাই স্তন ক্যান্সারের চিকিৎসায় নতুন আশার আলো দেখছেন গবেষকরা। ডেইলি মেইল অবলম্বনে সমকাল অনলাইন ৩ সেপ্টেম্বর খবরটি গুরুত্ব দিয়ে প্রকাশ করেছে।

খবরে বলা হয়েছে, ওই গবেষণা দলের প্রধান ডা. সিয়ারা ডুফি বলেন, মাত্র ৬০ মিনিটের মধ্যে ক্যান্সারের কোষের ঝিল্লি সম্পূর্ণরূপে ধ্বংস করতে পারে মেলিটিন। এর আরও একটি উল্লেখযোগ্য কার্যকারিতা হলো, এটি মাত্র ২০ মিনিটে ক্যান্সার কোষের রাসায়নিক বার্তা পাঠানো হ্রাস করতে সক্ষম। এই রাসায়নিক বার্তা ক্যান্সার কোষ বড় হতে এবং শাখা-প্রশাখা ছড়াতে সাহায্য করে। এ আবিস্কারের মাধ্যমে ক্যান্সার চিকিৎসার নতুন দ্বার উন্মোচিত হতে পারে বলে তিনি আশা করেন। মেলিটিন ও এর কার্যকারিতা নিয়ে এ আবিস্কারকে 'অবিশ্বাস্য' বলেছেন ইউনিভার্সিটি অব ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়ার প্রধান বিজ্ঞানী অধ্যাপক পেটার লিংকেন।

মন্তব্য