| প্রচ্ছদ

পানি সেচে অতিরিক্ত অর্থ আদায়

নওগাঁয় ৬ গভীর নলকূপ মালিক ‍ও অপারেটরের অর্থদণ্ড

রাণীনগর উপজেলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি
পঠিত হয়েছে ১৬০ বার। প্রকাশ: ২৮ মার্চ ২০১৯ ২৩:১৭:২৪ । আপডেট: ২০১৯-০৩-২৮ ১৭:২৮:২৯ ।

ধানের জমিতে সেচের জন্য কৃষকদের নিকট থেকে নির্ধারিত মূল্যেরে চেয়ে অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের দায়ে নওগাঁর রাণীনগরে ভ্রাম্যমাণ আদালত ৬ গভীর নলকূপ মালিক ও অপারেটরকে অর্থ দণ্ডে দণ্ডিত করেছে। বুধবার বিকেলে ভ্রাম্যমাণ আদালত উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালায়।

রাণীনগর উপজেলা সেচ কমিটির সদস্য সচিব ও বরেন্দ্র উন্নয়ন প্রকল্পের সহকারী প্রকৌশলী তিতুমির রহমান জানান, রাণীনগর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে মাটির প্রকৃতি,পানির স্তর, বিভিন্ন খরচাদিসহ এলাকা ভেদে পানি সেচের মূল্য নির্ধারন করা হয়েছে। কিন্তু গভীর নলকূপ মালিক ও অপারেটররা তা অগ্রাহ্য করে কৃষকদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায় করছে। এব্যাপারে কৃষকদের কাছ থেকে অভিযোগ পাওযার পর বুধবার বিকেলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল মামুন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন।

আদালত সূত্র জানায়, উপজেলার সিম্বা গ্রামের বরেন্দ্রের আওতায় গভীর নলকূপ অপারেটর আব্দুর রাজ্জাক রাজাকে তিন হাজার,দেউলিয়া গ্রামের এরশাদ আলীকে তিন হাজার,একই গ্রামের শাহিনুর ইসলামকে তিন হাজার,চামটা গ্রামের সঞ্জিত কুমারকে তিন হাজার,দেউলিয়া গ্রামের মিঠু কুমারকে দুই হাজার এবং লোহাচুড়িয়া গ্রামের ব্যাক্তি মালিকানা গভীর নলকূপ মালিক বেলায়েত হোসেনকে তিন হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। তাদের প্রত্যেকের কাছ থেকে ভবিষ্যতে সরকার নির্ধারিত দরে সেচ খরচ গ্রহণের অঙ্গিকারনামাও নেয়া হয় । 

মন্তব্য