| প্রচ্ছদ

আইপিএলে ১১ বছরের রেকর্ড ভাঙলেন আলজারি

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৮৭ বার। প্রকাশ: ০৭ এপ্রিল ২০১৯ । আপডেট: ০৭ এপ্রিল ২০১৯ ।

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) ইতিহাস গড়লেন আলজারি শাহিম জোসেফ। শনিবার আইপিএলে প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমে ইতিহাস গড়লেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই তরুণ পেসার। তার গতির সামনে দাঁড়াতেই পারেননি সানরাইজার্স হায়দরাবাদের ব্যাটসম্যানরা। ৩.৪ ওভারে ১২ রানে ৬ উইকেট শিকার করেন জোসেফ। আর এই ছয় উইকেট শিকার করা মধ্য দিয়ে আইপিএলের ১১ বছরের রেকর্ড ভেঙে ইতিহাস গড়েন তিনি।

এর আগে ২০০৮ সালের আইপিএলে পাকিস্তানি পেস বোলার সোহেল তানভির রাজস্থান রয়েলসের হয়ে চেন্নাই সুপার কিংসের বিপক্ষে ৪ ওভারে ১৪ রানে ৬ উইকেট শিকার করেছিলেন।

সোহেল তানভিরের সেই রেকর্ডটি স্থায়ী ছিল টানা ১১ বছর। লম্বা সময় পর তার সেই রেকর্ড ভেঙে শনিবার নতুন ইতিহাস গড়েছেন আলজারি জোসেফ। ২২ বছর বয়সী জোসেফের বোলিং তোপের মুখে পড়ে হেরে যায় সাকিবহীন হায়দরাবাদ।

শনিবার হায়দরাবাদের রাজীব গান্ধী স্টেডিয়ামে জয়ের জন্য স্বাগতিকদের প্রয়োজন ছিল মাত্র ১৩৭ রান। কিন্তু এ মামুলি সংগ্রহও টপকাতে পারেনি আলজারির অবিশ্বাস্য বোলিং নৈপুণ্যে।

১৭. ৪ বলে মাত্র ৯৬ রানে অলআউট হয় অরেঞ্জ আর্মিরা। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২০ রান করেন ডিজে হোডা। উদ্বোধনী জুটিতে ৩৩ রান সংগ্রহের পর চতুর্থ ওভারে হায়দরাবাদ ইনিংসের প্রথম আঘাত হানেন চাহার।

ব্যক্তিগত ১৬ রান করে বেইরস্ট্রো ফিরে যাওয়ার পর পঞ্চম ওভারে জুসেফ আরজালির বলে ফিরে যান ১৫ রান করা ডেভিড ওয়ার্নার। এরপর আর কোনো জুটি গড়ে তুলতে পারেনি সানরাইজার্সরা।

এর আগে টস জিতে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সকে প্রথমে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানায় হায়দরাবাদ।

চার ম্যাচে ৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষেই ছিল সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। শনিবার দিনের প্রথম ম্যাচে পাঞ্জাবকে হারিয়ে ৮ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে উঠে আসে মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বাধীন চেন্নাই সুপার কিংস।

প্রথমে ব্যাট করে ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৩৬ রান সংগ্রহ করে মুম্বাই। দলের হয়ে ২৬ বলে ৪৬ রান করে অপরাজিত ছিলেন কায়রন পোলার্ড। এছাড়া ১৯ রান করেন ওপেনার ডি কক।

চলতি আইপিএলে এক ম্যাচ খেলেই দল থেকে বাদ পড়েন সাকিব আল হাসান। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে শনিবার পঞ্চম ম্যাচেও হায়দরাবাদের একাদশে জায়গা হয়নি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের।

আগের তিন ম্যাচের মতো আজও সাইড বেঞ্চে বসে অলস সময় কাটাতে হয় সানরাইজার্স হায়দরাবাদের এই অলরাউন্ডারকে।

মন্তব্য