| প্রচ্ছদ

বিস্কুট খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে

নওগাঁর রাণীনগরে বুদ্ধি ও বাকপ্রতিবন্ধী যুবতিকে ধর্ষণ

কাজী আনিছুর রহমান, রাণীনগর (নওগাঁ)
পঠিত হয়েছে ১২৮ বার। প্রকাশ: ১২ এপ্রিল ২০১৯ । আপডেট: ১২ এপ্রিল ২০১৯ ।

নওগাঁর রাণীনগরে বুদ্ধি ও বাকপ্রতিবন্ধী এক যুবতিকে বিস্কুট খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে ধর্ষণ করেছে গোবিন্দ চন্দ্র ওরফে সুটকা(৬০) নামের এক বৃদ্ধ। সে উপজেলার আতাইকুলা পালপাড়া গ্রামের মৃত দুলাল চন্দ্রের ছেলে। এ ঘটনায় শুক্রবার রাণীনগর থানায় তার বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে আতাইকুলা পালপাড়া গ্রামে।   
 

স্থানীয় ও থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, ওই বৃদ্ধ বুধবার সকাল অনুমান সাড়ে ৯টায় বুদ্ধি ও বাকপ্রতিবন্ধী একটি মেয়েকে(২২) বিস্কুট খাওয়ানোর কথা বলে কৌশলে তার বাড়িতে নিয়ে যায়। এর পর তাকে ধর্ষণ করে। যুবতি বাড়ীতে এসে ইশারা ইঙ্গিতে তাকে ধর্ষণের এবং প্রচন্ড ব্যথা অনুভবের কথা বলে । বিষয়টি ধীরে ধীরে জানাজানি হলে ঘটনাটি নিষ্পত্তি করতে বৃহস্পতিবার রাতে আতাইকুলা গ্রামে বৈঠক করা হয়। এতে বিষয়টি নিষ্পত্তির চেষ্টা ব্যর্থ হয়। পরে ওই প্রতিবন্ধির বাবা বাদী হয়ে শুক্রবার সকালে গোবিন্দকে আসামী করে রাণীনগর থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।   

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই সেলিম জানান, ওই ঘটনায় শুক্রবার দুপুরে যুবতির মেডিকেল পরীক্ষা সম্পন্ন করা হয়েছে।    
 

রাণীনগর থানার ওসি এএসএম সিদ্দিকুর রহমান জানান, মেয়েটি বাকবুদ্ধি ও কিছুটা শারীরিক প্রতিবন্ধী। ধর্ষক গোবিন্দের বাড়ীতে কেউ না থাকায় মেয়েটিকে বিস্কুট খাওয়ানোর লোভ দেখিয়ে ওই বাড়ীতে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করেছে। মেয়ের বাবা বাদী হয়ে থানায় একটি ধর্ষন মামলা দায়ের করেছেন। তবে ঘটনার পর থেকেই সে পলাতক থাকায় তাকে এখনো গ্রেফতার করা সম্ভব হয় নি। তবে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। 

মন্তব্য