| প্রচ্ছদ

বিশ্বকাপের রূপকথার একাদশে সাকিব!

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৫৬ বার। প্রকাশ: ১৪ জুন ২০১৯ ।

বিশ্বকাপের দামামা বাজছে। একের পর এক রুদ্ধশ্বাস ম্যাচ, উল্টে দেয়া সমীকরণ, বৃষ্টিতে ভেস্তে যাওয়া-সব মিলিয়ে রূপকথার বিশ্বকাপ। এ পর্যায়ে এসে যদি ফ্যান্টাসি একাদশ তৈরি করতে হয়, তা হলে কাদের রাখা যেতে পারে? পারফরম্যান্স অনুযায়ী দেখে নেয়া যাক সেই রূপকথার দল-

রোহিত শর্মা: প্রথম ম্যাচে ১২২, পরের ম্যাচে ৫৭ রান করেছেন তিনি। সেই হিসেবে নিঃসন্দেহে ওপেনিংয়ে তাকে রাখা যায়।

ডেভিড ওয়ার্নার: বিশ্বকাপে দারুণ ফর্মে আছেন তিনি। চার ম্যাচে করেছে দুটি ফিফটি ও একটি সেঞ্চুরি। ইনিংস উদ্বোধনে হিটম্যানের সঙ্গী হবেন অজি বিস্ফোরক ওপেনার।

বিরাট কোহলি: ওয়ানডাউনে নামবেন তিনি। দলের অধিনায়কত্বও পালন করবেন এ রানমেশিন। বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত তার পারফরম্যান্স বেশ ভালো।

স্টিভ স্মিথ: টু ডাউনে খেলবেন তিনি। আসরে এ পর্যন্ত ভালো করেছেন অজি তারকা। ধারাবাহিক ও দায়িত্বশীল ব্যাটসম্যান হিসেবে রইলেন স্মিথ।

সাকিব আল হাসান: বিশ্বকাপ শুরুই করেছেন রেকর্ড দিয়ে। বল ও ব্যাট হাতে প্রতি ম্যাচে ঝলসে উঠেছেন তিনি। স্পিন অলরাউন্ডার হিসেবে তাকে রাখতেই হবে একাদশে।

কুশল পেরেরা: তাকে দলে রাখা যেতে পারে আগ্রাসী মনোভাবের জন্য। তিনি উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলবেন। শেষ দুই ম্যাচে ৭৮ ও ২৯ রান করেছেন এ লংকান।

হার্দিক পান্ডিয়া: পেস অলরাউন্ডার হিসেবে দলে ঠাঁই পাবেন তিনি। বিশ্বকাপে ধারাবাহিকভাবে ভালো খেলছেন।

গ্লেন ম্যাক্সওয়েল: বড় স্কোর গড়তে সক্ষম তিনি। পাশাপাশি হাতটাও ঘোরাতে পারেন। দলে পার্টটাইম অফস্পিনার হিসেবে থাকছেন তিনি।

প্যাট কামিন্স: এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের দ্বাদশ আসরে বল হাতে ভয়ঙ্কর তিনি। দ্রুত উইকেট তুলে নেয়ার সক্ষমতা জন্য স্থান পাবেন অজি সিমার।

যুজবেন্দ্র চহাল: তার ঘূর্ণিতে কুপোকাত হচ্ছেন প্রতিপক্ষের ব্যাটসম্যানরা। দিব্যি ভালো খেলছেন তিনি। বিষেশজ্ঞ স্পিনার হিসেবে থাকবেন এ ভারতীয়।

জাসপ্রিত বুমরাহ: দলের বড় ভরসার জায়গা পেস শক্তি। এ পেস আক্রমণ মজবুত করতে থাকছেন তিনি। ডেথ বা স্লগ ওভারে দারুণ কার্যকরী ভিন্ন অ্যাকশনধর্মী এ পেসার।

মন্তব্য