| প্রচ্ছদ

শিশু সাহিত্যে অবদানের জন্য সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পাচ্ছেন নবনীতা দেবসেন

পুন্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৭৭ বার। প্রকাশ: ১৬ জুন ২০১৯ ।

পশ্চিমবঙ্গের জনপ্রিয় সাহিত্যিক নবনীতা দেবসেন শিশু সাহিত্যে অবদানের জন্য এবার সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পেতে যাচ্ছেন। ‘জগমোহনবাবুর জগৎ’‌, ‘‌খগেনবাবুর পৃথিবী’‌, ‘‌পলাশপুরের পিকনিক’‌, ‘‌বুদ্ধিবেচার সওদাগর’‌ বইগুলোর জন্য তিনি যথেষ্ট সমাদৃত। শুধু তাই নয়, গল্পগুজব, অন্যান্য গল্প, বসন মামার বাড়ি, মসিয়ে হুলোর হলি ডে, স্বাগত দেবদূত, তিন ভুবনের পারে’‌র মতোও অসাধারণ কিছু কাব্যগ্রন্থও তিনি লিখেছেন।

উল্লেখ্য, প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক হওয়ার পর যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তর করেন তিনি। পরে ডিস্টিংশন নিয়ে হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আরও একটি বিষয়ে স্নাতকোত্তর করেন। পিএইচডি’‌ও করেন। তারপর ফের গবেষণা করেন বার্কলের ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয় এবং কেমব্রিজের নিওনহ্যাম কলেজ থেকে। একাধিক পুরস্কারের পাশাপাশি ১৯৯৯ সালে তিনি পান সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার। তার পরের বছরই সম্মানিত হন পদ্মশ্রী পুরস্কারে।

১৯৫৯ এ তার প্রথম কাব্যগ্রন্থ 'প্রথম প্রত্যয়' প্রকাশিত হয় ও প্রথম উপন্যাস 'আমি অনুপম' ১৯৭৬ এ। কবিতা, প্রবন্ধ, রম্যরচনা, ভ্রমণ কাহিনী, উপন্যাস মিলে তার প্রকাশিত গ্রন্থ সংখ্যা ৩৮। এখনো নিয়মিত বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় লেখালেখি করেন।

১৯৬০ এ তিনি বিখ্যাত অর্থনীতিবিদ (পরবর্তীকালে নোবেলজয়ী) অমর্ত্য সেনের সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন ও তাদের দুই কন্যা সন্তান রয়েছে। বড় মেয়ে অন্তরা সাংবাদিক ও সম্পাদক, ছোট মেয়ে নন্দনা অভিনেত্রী ও সমাজকর্মী।

মন্তব্য