| প্রচ্ছদ

ব্রাজিলের ১২ নাকি পেরুর ৪৪ বছরের অপেক্ষার অবসান

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৪৮ বার

সেবার আর্জেন্টিনারই জয়ের কথা ছিল। আয়ালা, রিকুয়েলমে, গ্যাব্রিয়েল হেইঞ্জদের সাথে মেসি-তেভেজ। অন্যদিকে ব্রাজিল দলে রবিনহো ছাড়া বড় কেউ নেই। প্যারাগুয়েতে ব্রাজিলকে হারিয়ে শিরোপা জেতাটা আর্জেন্টিনার কেবল সময়ের অপেক্ষা। তবে পুরো বিশ্বকে অবাক করে চতুর্থ মিনিটেই আজেন্টাইনদের বুকে ছুড়ি চালিয়ে দেন বাপতিস্তা। আর্জেন্টিনাকে ৩-০ গোলে হারিয়ে ২০০৭ সালে সেবারই সর্বশেষ কোপা আমেরিকার শিরোপা যায় ব্রাজিলের ঘরে। আজ আবার সুযোগের অপেক্ষায় সেলেসাওরা। ফিরমিনো-জেসুসরা পারবেন তো এক যুগের প্রতীক্ষার অবসান ঘটাতে?

১৯৭৫ সাল। সেবারই কাগজে কলমে শুরু হয় কোপা আমেরিকা প্রতিযোগিতা। এর আগে প্রতিযোগিতাটির নাম ছিল সাউথ আমেরিকাস চ্যাম্পিয়নশিপ। সেবার প্রতিযোগিতার ধরণটা ছিল বর্তমানে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের মতো। হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে খেলা শুরু হয়। সেমিফাইনালও ছিল একই ফরম্যাটে। ফাইনাল ম্যাচ হয় তিনটি। দুদলের মাঠে দুটি আর নিরপেক্ষ ভেন্যুতে সর্বশেষটি। 

নতুন ফরম্যাটে বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেয় পেরু। গ্রুপর্ব পেরিয়ে সেমিফাইনালে ব্রাজিলের মুখোমুখি হয় দলটি। প্রথম লেগে ব্রাজিলকে ৩-১ গোলে হারায় পেরু। দ্বিতীয় লেগে লিমায় ব্রাজিল গোল পায় ২-০ ব্যবধানে। গোল ব্যবধানে ফাইনালে ওঠে পেরু। তিনটি ফাইনালের প্রথমটিতে জিতেছিল কলম্বিয়া। পরের দুটিতে জিতে পেরু ইতিহাস রচনা করে। 

৪৪ বছর পর আজ আবার ফাইনালে পেরু। প্রতিপক্ষ এবার ব্রাজিল। চার  যুগের প্রতীক্ষার অবসান ঘটাতে পারবে পেরুভিয়ানরা? রোববার বাংলাদেশ সময় রাত দুটায় শুরু হবে দক্ষিণ আমেরিকার শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই। আর তো মাত্র কয়েক ঘন্টার অপেক্ষা। টেলিভিশনে চোখ রাখতে ভুলবেন না যেন!  

মন্তব্য