| প্রচ্ছদ

টিকটকে ঝড় তুললেন দাদী-নাতি

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৫৪ বার। প্রকাশ: ০৮ জুলাই ২০১৯ ।

টিকটক নিয়ে বিশ্বজুড়ে মানুষের উন্মাদনার শেষ নেই। ভারতে কোটি কোটি মানুষ এই ভিডিও অ্যাপসে আসক্ত। চীনা এই অ্যাপস দেশটিতে নানা তর্ক-বিতর্কেরও জন্ম দিয়েছে।

এর মধ্যে হিন্দি গানের সঙ্গে দাদী-নাতির একটি টিকটক ভিডিও ভাইরাল হয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। বয়স্করাও কীভাবে ভিডিও অ্যাপসটির সঙ্গে যুক্ত হয়ে পড়ছে সেটি আলোচনায় উঠে এলো এর মধ্য দিয়ে।

ইন্ডিয়া টুডে জানায়, দক্ষিণী সিনেমার নায়ক ধানুসের গাওয়া আলোচিত গান হোয়াই দিস কোলাভারি ডি'র সঙ্গে সুর মেলান দাদী-নাতি।

তরুণ-তরুণীদের সঙ্গে বয়স্করাও সমানতালে টিকটকে আসক্ত হয়ে পড়ছে, তেমনটাই ইঙ্গিত দিচ্ছে এই ভিডিও। এতে দেখা যায়, নাতির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে ঠোঁট মেলাচ্ছে দাদী। বেশ হাসিমুখেই স্বাভাবিকভাবে দেখা গেছে তাকে।

টুইটারে এই ভিডিও ভাইরাল হয়ে পড়তেই সাড়া পড়ে যায় নেটিজেনদের মধ্যে। অনেকেই দাদী-নাতি জুটিকে বাহবা দিয়েছেন। আগেও এ দুইজন টিকটকে ভিডিও বানিয়েছিলেন। সেগুলোও শেয়ার দিচ্ছে মানুষ।

 চীনা জনপ্রিয় অ্যাপটি ভারতে তুমুল জনপ্রিয়। দেশটির ১২০ মিলিয়ন মানুষ নিয়মিত-অনিয়মতভাবে টিকটক ব্যবহার করছে।

বিভিন্ন গান, বিখ্যাত সিনেমার সংলাপসহ নানা ধরনের মজাদার অডিওর সঙ্গে ঠোঁট মিলিয়ে ভিডিও তৈরি করে আপলোড করা যায় টিকটক অ্যাপে। কিন্তু মজার এ অ্যাপ ঘিরে অভিযোগের শেষ নেই।

পর্নোগ্রাফিতে উৎসাহ দেওয়া ও শিশুদের ঝুঁকিতে ফেলার অভিযোগে সম্প্রতি ভারতে নিষিদ্ধ হলেও পরবর্তীতে আবার চালু হয় এটি।

গত জানুয়ারিতে মুম্বাইতে এক কিশোর নিজের জন্মদিনে আত্মহত্যা করে বসে। কারণ তার দাদি তাকে টিকটিক আসক্তি থেকে তাকে ফেরাতে চেয়েছিলেন।

গত এপ্রিলে দিল্লিতে টিকটকে ভিডিও বানানোর সময় বন্দুক থেকে আচমকা গুলি ছিটকে বন্ধুর হাতে নিহত হন এক তরুণ। কয়েকদিন আগেও মহারাষ্ট্রে একই ধরনের ঘটনা ঘটে, বন্দুক নিয়ে টিকটক করতে গিয়ে গুলিতে মারা যান এক তরুণ।

মন্তব্য