| প্রচ্ছদ

পরকিয়া প্রেমিকাকে মারধর করায় ধুনটে পুলিশ কর্মকর্তা ক্লোজড

স্টাফ রিপোর্টার
পঠিত হয়েছে ৩৯৫ বার

পরকিয়া প্রেমিকাকে মারধর করায় বগুড়ার ধুনট থানায় কর্মরত শাহানুর রহমান নামে পুলিশের এক এএসআইকে পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়েছে। শুক্রবার বিকালে পুলিশ সুপার তাকে ক্লোজড করার নির্দেশ দেন।

ওই পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে তিনি শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে ধুনট থানা ও হাসপাতাল গেটের সামনে কোহিনুর বেগম নামে এক মহিলাকে মারধর করেন। বিষয়টি টের পেয়ে লোকজন এগিয়ে এসে ওই মহিলাকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে দেন।


ওই মহিলা জানান, তিনি স্বামী পডিরত্যাক্তা। তার বাড়ী বগুড়া শহরের বউবাজার এলাকায়। তার বাবার নাম জবেদ আলী। ২০০৯ সালে বগুড়া আদালতে পরিচয় হয় সেসময় আদালতে কর্মরত পাবনা জেলার বাসিন্দা এ এসআই শাহানুর রহমানের সঙ্গে। এরপর তাদের মধ্যে ভালোবাসার সর্ম্পক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে শাহানুর রহমান তিন বছর আগে ধুনট থানায় বদলি হন। তারপরেই পরকিয়া সর্ম্পক চলতেই থাকে। গত কিছুদিন হলে শাহানুর রহমান তার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করলে তিনি বাধ্য হয়ে ধুনট থানায় যান। সেখানে গেলে শাহানুর রহমান ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে মারধর করে।


শাহানুর রহমান ওই মহিলার সঙ্গে এক সময় সর্ম্পক ছিল স্বীকার করে বলেন, 'ওই মহিলা আমাকে মাঝে মধ্যেই নারী নির্যাতনের মামলা করার হুমকি দিয়ে আসছিলো। এরপর তাকে দু’দফায় ৮৭ হাজার টাকা দিয়ে সব সর্ম্পক চুকে দেই। কিন্তু তারপরেও সে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে।'
 

এদিকে খবর পেয়ে বগুড়ার পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মকবুল হোসেন ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ধুনট-শেরপুর সার্কেল) গাজিউর রহমান সেখানে যান এবং জনসম্মূখে মহিলাকে মারধরের বিষয়টি নিশ্চিত হন। পরে পুলিশ সুপার আলী আশরাফ ভূঞার নিদের্শে শাহানুর রহমানকে পুলিশ লাইনে ক্লোজড করা হয়।

মন্তব্য