| প্রচ্ছদ

মোস্তাফিজের বউভাতে এলাহি কারবার

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৭১ বার

বিশ্বকাপে প্রত্যাশামাফিক সাফল্য পায়নি বাংলাদেশ! তবে স্বমহিমায় উজ্জ্বল ছিলেন কাটার মাস্টার মোস্তাফিজুর রহমান। ২০ উইকেট নিয়ে এখন পর্যন্ত টুর্নামেন্টের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ উইকেটশিকারী তিনি। স্বভাবতই তার প্রাপ্তিকে খাটো করে দেখার উপায় নেই।

বিশ্বমঞ্চে একের পর এক উইকেট তুলে নিয়েছেন ফিজ। সেই আনন্দে বাড়তি মাত্রা যোগ হচ্ছে শনিবার। এদিন তার বউভাত। এটি কাটার মাস্টারে জীবনে অন্যতম আনন্দময় ঘটনা হতে চলেছে।

গেল ২২ মার্চ মামাতো বোন সামিয়া পারভীন শিমুকে বিয়ে করেন মোস্তাফিজ। তখনই জানিয়েছিলেন, বউভাতের অনুষ্ঠান আয়োজন করবেন বিশ্বকাপের পর। কারণ, সেই সময় ক্রিকেট নিয়ে তার ব্যস্ততা ছিল চরম। অন্যকিছু নিয়ে ভাবার ফুরসত ছিল না।

কথামতো, ১৩ জুলাই বউভাত অনুষ্ঠান হচ্ছে মোস্তাফিজ-সামিয়ার। নববধূর আগমন উপলক্ষে বরের বাড়ি সেজেছে রাজকীয় সাজে, আলোক ঝলমলে শোভা পাচ্ছে নান্দনিক রূপে।

মোস্তাফিজের বড় ভাই মাহফুজুর রহমান মিঠু জানান, মোস্তাফিজের বউভাত অনুষ্ঠান রাঙাবেন প্রায় ২ হাজার আমন্ত্রিত অতিথি। ইতিমধ্যে নিমন্ত্রণের সব কাজ শেষ হয়েছে। বাড়ির সামনে তৈরি করা হয়েছে দৃষ্টিনন্দন তোরণ। সেখান থেকে ঘরের দরজা পর্যন্ত ঝকমক করছে বিদ্যুতের আলো। বর-কনের আসন সাজানো হয়েছে ফুল ও রঙিন আলোর সংমিশ্রণে। গোটা বাড়ির নান্দনিকতা দেখে মুগ্ধ হতেই হবে।

দ্য ফিজের বিয়ে উপলক্ষে সাড়া পড়ে গেছে সাতক্ষীরার কালীগঞ্জ উপজেলার তারালি ইউনিয়নের তেঁতুলিয়া গ্রামে। তার পারিবারিক সূত্রে জানা গেল, অনুষ্ঠানে এক সাবেক মন্ত্রীসহ স্থানীয় সুধীজনেরা উপস্থিত থাকবেন । তবে জাতীয় দলের সব খেলোয়াড় থাকছেন না। তাদের নিয়ে ঢাকায় আরেকটি জমকালো অনুষ্ঠান আয়োজন করার পরিকল্পনা আছে তার।

বাঁহাতি পেসারের নবপরিণীতা সামিয়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) মনোবিজ্ঞান বিভাগের অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। তার স্বপ্নের রাণি ২০১৮ সালে দেবহাটার সখিপুর খান বাহাদুর আহসানউল্লাহ কলেজ থেকে এ প্লাস পেয়ে এইচএসসি পাস করেন। এর আগে ২০১৬ সালে নলতা হাইস্কুল থেকে তিনি গোল্ডেন এ প্লাস পেয়ে পাস করেন এসএসসি।

মন্তব্য