| প্রচ্ছদ

শিবগঞ্জে ৩০ দুস্থ পরিবারকে কোরবানির পশু দিলেন মেয়র মানিক

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি
পঠিত হয়েছে ৩৮৮ বার। প্রকাশ: ১০ অগাস্ট ২০১৯ ।



বগুড়ার শিবগঞ্জ পৌরসভার বন্তেঘরি গ্রামে কোরবানি দেবার সামর্থ্য নেই এমন ৩০ দুস্থ পরিবারকে গরু কিনে দিয়ে কোরবানি দেবার সুযোগ করে দিয়েছেন শিবগঞ্জ পৌরসভার মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক। ঈদের আনন্দে সবাই যেন পরিবার পরিজন নিয়ে সামিল হতে পারে এজন্য তিনি এ আয়োজন করেছেন। আগামী সোমবার পবিত্র ঈদুল আযহার দিনে গরুটি কোরবানি দিয়ে সেই মাংস দুস্থ পরিবারের সবাই সমানভাবে ভাগ করে নেবেন। পরে সবার সঙ্গে সন্তান-পরিজন নিয়ে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে নেবেন তাঁরা।   
শিবগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে মাত্র আড়াই কিলোমিটার উত্তরে পৌর এলাকার বন্তেঘরি মহল্লা। সেই মহল্লায় প্রায় দুইশ পরিবারের ৬০০ মানুষের বাস। এদের মধ্যে দিনমজুর, ভ্যানচালক, রিকশাচালক, কৃষক, কুলি, মজুর, বিধবাসহ প্রায় ৩০টি দরিদ্র পরিবারের বাস। তারা দিনে যা আয় করেন তা দিয়েই কোনো মতে পরিবার পরিজন নিয়ে সংসার চালান। ঈদ তাদের কাছে প্রতিদিনের মতো একটি সাধারণ দিন। ঈদ উপলক্ষে তাদের বাড়তি কোনো আয়োজন নেই। তাদের ঈদুল আযহায় কোরবানি দেবার মতো সামর্থও নেই তাঁদের পরিবারের। এ জন্য মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক গরীব-দুস্থ এই ৩০ পরিবারের জন্য বিলহামলা (বুড়িগঞ্জ) হাট থেকে একটি গরু কিনে দেন। ঈদের দিন তারা গরুটি কোরবানি দিয়ে সেই মাংস সবাই সমানভাবে ভাগ করে নেন।
শনিবার দুপুরে মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিকের পক্ষে তার ভাতিজা রেদোয়ান সরকার গরুটি তুলে দেন ওই সব পরিবারের সদস্যদের হাতে। 
বন্তেঘরি মহল্লার বাসিন্দা ভ্যানচালক জিন্নাত আলী বলেন, এ মহল্লায় অনেকের কোরবানি দেবার সামর্থ নেই। এজন্য তৌহিদুর রহমান মানিক মেয়র হবার পর থেকেই আমাদের এরাকার গরীব মানুষদের জন্য প্রতিবছর কোরবানি দেবার জন্য গরু কিনে দেন। ফলে আমরা সবাই মিলে একসঙ্গে ঈদের আনন্দ উপভোগ করি।   
বন্তেঘড়ি মহল্লার প্রবীন শিক্ষক আবদুস সামাদ জানান, পৌর মেয়রের ব্যক্তিগত উদ্যোগে গত কয়েক বছর ধরে অস্বচ্ছল এসব পরিবার ঈদের আনন্দে শরিক হতে পারছেন।  
মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিক বলেন, সবার সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতেই এই উদ্যোগ। তিনি বলেন, পৌর এলাকার গরীব দুখি সবাই যেন ঈদের আনন্দ থেকে বঞ্চিত না হয় এ জন্য তাদেরকে ব্যক্তিগত উদ্যোগে কোরবানি পশু কিনে দেওয়া হয়েছে।

 

মন্তব্য