| প্রচ্ছদ

জম্মু ও কাশ্মীরে মানবাধিকার সম্পূর্ণ লঙ্ঘিত: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৪০ বার। প্রকাশ: ১৯ অগাস্ট ২০১৯ ।

জম্মু ও কাশ্মীরে মানবাধিকার সম্পূর্ণ লঙ্ঘিত হয়েছে। তাই ওই অঞ্চলের শান্তির জন্য প্রার্থনার আবেদন জানালেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এরই সঙ্গে পুরোনো ঘটনার উল্লেখ করে জানালেন, লকআপে মৃত্যুর বিরুদ্ধে তিনি একবার ২১ দিন রাস্তায় থেকে প্রতিবাদ করেছিলেন।

বিশ্ব মানবতা দিবস সেই উপলক্ষে সোমবার টুইট বার্তা এই সব কথা বলেন তিনি।

মমতা লেখেন, ‘‘আজ বিশ্ব মানবতা দিবস। জম্মু ও কাশ্মীরে মানবাধিকার সম্পূর্ণ লঙ্ঘিত হয়েছে। আসুন আমরা প্রার্থনা করি কাশ্মীরের মানবাধিকার ও শান্তির জন্য। মানবাধিকার বিষয়টি আমার হৃদয়ের খুব কাছের। ১৯৯৫ সালে আমি লকআপে মৃত্যুর বিরুদ্ধে মানবাধিকার রক্ষার জন্য ২১ দিন রাস্তায় ছিলাম।”

গত ৫ আগস্ট সাংবিধানিক বিশেষ মর্যাদা ও রাজ্যের মর্যাদা তুলে নিয়ে ভারত শাসিত কাশ্মীরকে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে ভাগ করে ফেলে ভারতীয় জনতা পার্টি-বিজেপি সরকার।

এ ঘটনাকে ঘিরে সোমবার ১৫তম দিনের মতো নজিরবিহীন কারফিউতে অবরুদ্ধ রয়েছে ভূ-স্বর্গ খ্যাত কাশ্মীর। রাজনৈতিক নেতা-কর্মী ছাড়াও অনেক সাধারণ মানুষ বন্দী হয়ে আছেন কারাগারে। ল্যান্ডফোন ও মোবাইল ফোনসহ সব ধরনের ইন্টারনেট যোগাযোগ বন্ধ থাকায় কাশ্মীর কার্যত বাকি বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন রয়েছে।

মন্তব্য