| প্রচ্ছদ

নায়িকার শরীরের দাগ নিয়ে নিন্দা

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ৭১ বার। প্রকাশ: ০১ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ।

ওজনের কারণে প্রায়ই কথা শুনতে হয় জেরিন খানকে। কিন্তু এই বলিউড নায়িকার সাফ জবাব, শরীর নিয়ে সিদ্ধান্ত একান্ত তারই।

এবার শরীরের স্ট্রেচ মার্কসের কারণে সোশ্যাল মিডিয়ায় আক্রমণের শিকার হয়েছেন ‘বীর’ সিনেমার এই নায়িকা। তার পাশে দাঁড়িয়েছেন আরেক নায়িকা আনুশকা শর্মা।

সম্প্রতি ইনস্টাগ্রামে নিজের একটি ছবি পোস্ট করেন জেরিন। সেখানে শরীরের স্ট্রেচ মার্কস নিয়ে তাকে ট্রোল করতে থাকেন অনেকেই।

ওই ছবিতে দেখা যাচ্ছে জেরিনের পরনে রয়েছে সাদা রঙের ক্রপ টপ। পেছনে দৃশ্যমান উদয়পুরের সরোবর। ক্যাপশনে লেখেন ‘সরোবরের শহর’। আর শরীরে দেখা যাচ্ছে স্ট্রেচ মার্ক। তাতেই নেটিজেনদের একাংশ বাজে ভাষায় ভরিয়ে তোলেন ছবির মন্তব্যের ঘর।

কেউ লেখেন, “খুবই অদ্ভুত দেখতে আপনার পেট।” আবার কেউ লেখেন, “এ বাবা আপনার পেটে এ কী হয়েছে!”

ওজন কমালে বা প্রেগনেন্সির পরে স্ট্রেচ মার্কস একটি অত্যন্ত স্বাভাবিক বিষয়। তবুও তা নিয়ে হীনমন্যতায় ভোগেন অনেক নারী। জেরিন জানালেন, তিনি ততটা নাজুক নন।

জেরিন বলেন, “প্রায় ৫০ কেজিরও বেশি ওজন কমালে স্ট্রেচ মার্কস থাকাটা খুবই স্বাভাবিক। চিরকালই স্বাভাবিক শারীরিক সৌন্দর্যে বিশ্বাস করে এসেছি। তাই স্ট্রেচ মার্কস নিয়ে আমি মাথা ঘামাই না। ফটোশপ বা সার্জারি না করলে স্বাভাবিক মানুষের শরীর এমনই হয়।”  

জেরিনের বলিষ্ঠ জবাবে মুগ্ধ হয়ে আনুশকা লেখেন, “জেরিন তুমি সুন্দর, সাহসী ও আত্মবিশ্বাসী। যেমন রয়েছে তেমনই থেকো।”

অনুরাগীরাও পাশে দাঁড়িয়েছেন নায়িকার। কেউ লিখেছেন, “তোমার শরীরের ওই দাগগুলোই জানান দেয় তুমি কতটা পরিশ্রমী।” কেউ আবার লেখেন, “তোমার প্রতি শ্রদ্ধা হয়, জেরিন।”

এর আগে পেটে স্ট্রেচ মার্ক দেখা যাওয়ার সমালোচনার মুখে পড়তে হয় মালাইকা আরোরাকে।

মন্তব্য