| প্রচ্ছদ

বাংলাদেশ সিরিজেও নেই ধোনি

পুণ্ড্রকথা ডেস্ক
পঠিত হয়েছে ২৭ বার। প্রকাশ: ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ।

ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে হারের পর আর মাঠে নামেননি ভারতের উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মাহেন্দ্র সিং ধোনি। খেলেননি কোন আন্তর্জাতিক ম্যাচ। ভারতীয় সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট কর্নেলের মর্যাদা পাওয়া ধোনি বিশ্বকাপের পরে সেনা ক্যাম্পে যোগ দেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে এবং টি-২০ সিরিজের দল থেকে নিজের নাম প্রত্যাহার করে নেন। এরপর ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টি-২০ সিরিজেও ফেরেননি ধোনি।

বিশ্রামে থাকা ধোনি তার ছুটির মেয়াদ আরও বাড়িয়েছেন। আগামী নভেম্বর পর্যন্ত ক্রিকেটের বাইরে থাকবেন তিনি। বাংলাদেশের বিপক্ষে ঘরের মাঠে তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজেও তাই দেখা যাবে না ধোনিকে। সূচি অনুযায়ী, আগামী ৩ নভেম্বরে ভারতে প্রথম টি-২০ ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টি-২০ ম্যাচে বাংলাদেশ ১০ নভেম্বর ভারতের মুখোমুখি হবে। এরপর ১৪ নভেম্বর থেকে শুরু হবে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ।

ধোনি যেহেতু নভেম্বর পর্যন্ত ছুটিতে থাকবেন তাই বাংলাদেশের বিপক্ষে আপাতত তার খেলার সম্ভাবনা নেই। তবে ওই সিরিজের ঢের সময় বাকি এখনও। ধোনি তাই পরে তার সিদ্ধান্ত বদলে খেলতেও পারেন। এর আগে ধোনির সঙ্গে কোহলি তার ব্যাটিংয়ের এক স্মৃতি তুলে টুইট করেন, 'ধোনি আমাকে ক্রিজে ফিটনেস টেস্টে যেভাবে দৌড়াতে হয় সেভাবে দৌড়ানি দিয়েছিল। ওই স্মৃতি আমি কোনদিনই ভুলব না।' এই টুইটে অনেকে ধারণা করেছিলেন ধোনি অবসর ঘোষণা করবেন।

কিন্তু ধোনি তা করেননি। ধোনির অবসর নিয়ে সুনীল গাভাস্কার তাই বলেন, 'ধোনির মনে কি চলছে তা কেবল ধোনিই বলতে পারবে। একমাত্র ধোনিই পারে তার অবসরের বিষয়টি পরিষ্কার করতে। তবে তার বয়স হয়ে গেছে ৩৮ বছর। ভারতীয় বোর্ডের উচিত এখন সামনে তাকানো। দলে তার ভূমিকা সবসময়ই খুবই গুরুত্বপূর্ণ। শুধু ব্যাটসম্যান হিসেবে নয়। উইকেটরক্ষক হিসেবেও। কিন্তু আগামী বিশ্বকাপ আসতে আসতে তার বয়স হয়ে যাবে ৩৯ বছর। সেটা মাথায় রাখতে হবে।

মন্তব্য